রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বিকাল ৫:৪৫
শিরোনাম :
রাত পোহালেই বাবুগঞ্জ-এ ভোট, কে হাসবেন বিজয়ের হাসি! ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে ভোট পড়েছে ৩৫ শতাংশের মতো: সিইসি রাজধানী শহরসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ভূমিকম্প হেলমেট পরিধানে অনীহাই ঝুঁকিতে বরিশালের ৯০ ভাগ সংবাদকর্মীর প্রাণ কাউখালী উপজেলা নির্বাচনে আনারস প্রার্থীর কর্মীদের মারধর ও পুলিশ হয়রানির অভিযোগ ল’ এসোসিয়েশন অফ বাংলাদেশ (ল্যাব) এর বরিশাল জেলার কমিটি গঠন বন বিভাগের জমিতে গড়ে ওঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ বর্তমানে চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩০ থেকে বাড়োনোর প্রস্তাব নেছারাবাদ সাগরকান্দার কুখ্যাত ডাকাত রুবেল খুলনায় আটক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত ডাক্তারের অবহেলায় নবজাতক মৃত্যুর অভিযোগ

হেলমেট পরিধানে অনীহাই ঝুঁকিতে বরিশালের ৯০ ভাগ সংবাদকর্মীর প্রাণ

এস.এম জাহিদ ( বিশেষ প্রতিনিধি)::

সংবাদ সংগ্রহের জন্য সর্বদাই সাংবাদিকদের দ্রুততার সাথে এক স্থান থেকে অন্য স্থানে যাতায়াত করতে হয়। আর এ সময়ে জীবনের ঝুঁকি থাকার পরেও মোটরসাইকেল চালানোর সময়ে হেলমেট পরিধানে অনীহা সৃষ্টি হয়েছে সংবাদকর্মীদের মাঝে।
বরিশালে শতকরা প্রায় ৯০ জন সংবাদকর্মী হেলমেট বিহীন মোটরসাইকেল দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন বরিশালের মহাসড়ক সহ বিভিন্ন অলিতে-গলিতে । সরেজমিনে প্রত্যক্ষ ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণের দায়িত্বশীল পুলিশ সদস্যরা সাংবাদিক লেখা স্টিকার দেখলেই মোটরসাইকেল না থামিয়ে উল্টো না দেখার ভান করে তাকিয়ে থাকছেন বিপরীত দিকে। নিজস্ব দুর্বলতার কারণে ঝুঁকিতে ফেলে দিচ্ছে সংবাদকর্মীদের প্রাণ ।

হেলমেট মাথার সুরক্ষার জন্য ব্যবহৃত একধরনের শিরোস্ত্রাণ বা মাথার বর্ম বিশেষ। হেলমেট মাথাকে বাইরের আঘাত থেকে রক্ষা করে। সর্বপ্রথম খ্রিস্টপূর্ব ৯০০ সালে অ্যাসিরীয় সৈন্যদের হেলমেট ব্যবহারের কথা জানা যায়। এই হেলমেট গুলো মোটা চামড়া বা ব্রোঞ্জ দিয়ে তৈরি করা হতো এবং যুদ্ধক্ষেত্রে ভোঁতা বস্তু, তলোয়ার ও তীরের আঘাত থেকে মাথার সুরক্ষার জন্য ব্যবহার করা হতো। সৈন্যরা এখনও হেলমেট ব্যবহার করে, কিন্তু এখনকার হেলমেটগুলো সাধারণত প্লাস্টিক বা এ জাতীয় হালকা উপাদান দিয়ে তৈরি করা হয়। আধুনিক সমাজে মোটরসাইকেল দূর্ঘটনা প্রতিরোধের ক্ষেত্রে হেলমেটের ব্যবহার অপরিহার্য করা হয়েছে। গত বছর ২০২৩ সালে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনা ঘটেছে প্রায় ২ হাজার ৫৩২টি, নিহত হয়েছেন ২ হাজার ৪৮৭ জন এবং আহত হয়েছেন ১ হাজার ৯৪৩ জন। নিহতদের মধ্যে এক হাজার ৯০৯ জন (৭৫ দশমিক ৩৯ শতাংশ) ১৪ থেকে ৪৫ বছর বয়সী। নিহত বা আহতের মাঝে সংবাদকর্মীর সংখ্যা রয়েছে শতাধিক।

আর এ সকল দূর্ঘটনাকে উৎসাহ দিচ্ছে বরিশালের ট্রাফিক আইন রক্ষায় নিয়োজিত পুলিশের দায়ীত্বশীলরা। সাংবাদিক ও এই পেশার সাথে জড়িতদের আইন মানতে বাধ্য করতে ব্যর্থ হচ্ছেন তারা। তবে এমন ঘটনার তীব্র বিরোধিতা করে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ট্রাফিক সার্জেন্ট প্রতিবেদককে জানান সাংবাদিকদের সাথে ঝামেলায় জড়াতে চান না তারা। কিন্তু কি এমন দুর্বলতা পুলিশের? কি কারণে সাংবাদিকদের যানবাহনে মামলা করতে অনীহা ট্রাফিকের?

সকল দুর্বলতার পিছনে রয়েছে ট্রাফিক পুলিশের ঘুষ ও অবৈধ বিট বানিজ্য । নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পিকআপ ভ্যান মালিক জানান,ট্রাফিকের এক পুলিশ কর্মকর্তাকে মাসিক মাসোয়া রা দিয়ে ২ টি গাড়ি চালাচ্ছেন তিনি। এ ছাড়াও কাগজপত্র বিহীন অটোরিকশা, গ্যাসের গাড়ি, সিএনজি, বাস, ট্রাক থেকে ও মাসোয়ারা আসে বরিশালের ট্রাফিকে কর্মরত অসাধু কর্মকর্তাদের পকেটে। এমনকি ফুটপাতের বাজার থেকে ও মাসোয়ারা তোলেন তারা।

জানা গেছে এ সকল মাসোয়ারার ভাগ বাটোয়ারায় জড়িয়ে পরেছেন একাধিক সংবাদকর্মীরা। আর সেখানেই মূল দুর্বলতা বরিশালের ট্রাফিক বিভাগের। নিজেদের দুর্বলতা ঢাকতেই সাংবাদিকদের সাথে ঝামেলায় জড়াতে নারাজ তারা৷ তবে এ সকল কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে কেউ কোন অভিযোগ না করায় তাদের বিরুদ্ধে কোনরূপ ব্যবস্থা নিতে পারছেন না বরিশাল ট্রাফিক পুলিশের উর্ধতন কর্মকর্তারা। আর তাতেই ঝুঁকিতে থেকে যাচ্ছে বরিশালের ৯০ ভাগ সংবাদকর্মীর প্রাণ।
তবে হেলমেট পরিধানে বরাবরই সতর্ক করে যাচ্ছে বরিশাল ট্রাফিক পুলিশ।

নিজের জীবন রক্ষায় সংবাদকর্মীদের পাশাপাশি সকলকেই ট্রাফিক আইন মেনে সার্টিফাইড নিরাপদ হেলমেট পরিধান করার বিকল্প কিছু নেই বলে মতামত বিশ্লেষকদের।

এদিকে অভিযোগ অস্বীকার করে বরিশাল ট্রাফিক পুলিশের অতিরিক্ত উপ পুলিশ কমিশনার রুনা লায়লা বলেন, হেলমেট ব্যবহার নিশ্চিত করতে আমরা কঠোরভাবে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছি। সংবাদকর্মী হোক অথবা পুলিশ সদস্য কাউকেই ছাড় দেয়া হচ্ছে না। তবে সকলেরই নিজ নিজ জায়গা থেকে সচেতন হওয়া উচিৎ।

সবাইকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা