সোমবার, ২৪শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সকাল ১০:৩৬
শিরোনাম :
রাত পোহালেই বাবুগঞ্জ-এ ভোট, কে হাসবেন বিজয়ের হাসি! ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে ভোট পড়েছে ৩৫ শতাংশের মতো: সিইসি রাজধানী শহরসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ভূমিকম্প হেলমেট পরিধানে অনীহাই ঝুঁকিতে বরিশালের ৯০ ভাগ সংবাদকর্মীর প্রাণ কাউখালী উপজেলা নির্বাচনে আনারস প্রার্থীর কর্মীদের মারধর ও পুলিশ হয়রানির অভিযোগ ল’ এসোসিয়েশন অফ বাংলাদেশ (ল্যাব) এর বরিশাল জেলার কমিটি গঠন বন বিভাগের জমিতে গড়ে ওঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ বর্তমানে চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩০ থেকে বাড়োনোর প্রস্তাব নেছারাবাদ সাগরকান্দার কুখ্যাত ডাকাত রুবেল খুলনায় আটক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত ডাক্তারের অবহেলায় নবজাতক মৃত্যুর অভিযোগ

দপদপিয়া সেতু থেকে নদীতে ঝাঁপ দিলো কলেজছাত্রী, অভিমান প্রেমিকের সাথে

ডেক্স রিপোর্ট :: বরিশাল-পটুয়াখালি মহাসড়কের শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত (দপদপিয়া) সেতুর ওপর থেকে কীর্তনখোলা নদীতে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহুতির চেষ্টা চালিয়েছে এক কলেজছাত্রী (১৭) । পরে প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয় একজন জেলে তাকে উদ্ধার করে প্রাণে বাঁচায়। পুলিশের দাবি, প্রেমঘটিত কারণে ওই শিক্ষার্থী আত্মহুতির চেষ্টা চালিয়েছে।

সোমবার (২৪ আগস্ট) দুপুর সোয়া ২টার দিকে বরিশাল সদর উপজেলাধীন দপদপিয়া সেতু এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, কলেজছাত্রী পিরোজপুরের স্বরুপকাঠি সদর উপজেলার সুটিয়াকাঠি গ্রামের আব্দুল মালেকের মেয়ে এবং স্থানীয় ফজিলা রহমান মহিলা কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী। সোমবার সকাল ১০টার দিকে সে নিজ বাড়ি থেকে বের হয়। পরে প্রেমঘটিত কারণে প্রেমিকের সাথে অভিমান করে দুপুর সোয়া ২টার দিকে আত্মহত্যার চেষ্টায় সেতুর ওপর থেকে কীর্তনখোলা নদীতে ঝাঁপ দেয়।

কিশোরীকে উদ্ধারকারী আজিজ খলিফা (৬২) জানান, বেলা ২টার দিকে সেতুর নিচ বরাবর কীর্তনখোলা নদীতে মাছ ধরছিলেন তিনি। এ সময় সেতুর ওপর থেকে বোরকা পরিহিত ওই শিক্ষার্থী নদীতে ঝাপ দেয়। নদীর তীব্র স্রোতে ভেসে যাওয়া অবস্থায় তিনি মেয়েটিকে উদ্ধার করেন এবং নদী তীরবর্তী এলাকার গাজী বাড়িতে নিয়ে যান। সেখানকার বাসিন্দারা ওই শিক্ষার্থীকে প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করে তার পরিবার ও স্থানীয় থানায় খবর দেন। পরে পুলিশ এ্যাম্বুলেন্স নিয়ে ঘটনাস্থল থেকে ওই শিক্ষার্থীকে নিয়ে যায়।

স্থানীয় গাজী বাড়ির বাসিন্দা মো. সুমন (২৬) জানান, প্রাথমিক চিকিৎসার পরে জিজ্ঞাসাবাদে ওই শিক্ষার্থী জানিয়েছে, সে তার এক ছেলে বন্ধুকে (প্রেমিক) নিয়ে শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাত সেতুতে ঘুরতে আসেন। দীর্ঘদিনের প্রেম থাকলেও ইদানিং প্রেমিক তার সঙ্গে সম্পর্কের সমাপ্তি চাচ্ছিলো। এনিয়ে তাদের দু’জনার মধ্যে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে নদীতে ঝাঁপিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে শিক্ষার্থী। তবে মেয়েটি নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়ার সাথে সাথেই ছেলেটি পালিয়ে যান বলে জানিয়েছেন সুমন।

বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানার ওসি নুরুল ইসলাম জানান, প্রাথমিক তথ্যে ধারণা করা হচ্ছে, হৃদয়ঘটিত কোনো কারণে মেয়েটি আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিল। বর্তমানে মেয়েটি নগরীর শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পুলিশি হেফাজতে চিকিৎসাধীন রয়েছে।’

সবাইকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা