বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ ইং, রাত ১২:৪২
শিরোনাম :
করোনাভাইরাসে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ৪ জনের মৃত্যু মানবতার মা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে সাক্ষাৎ করতে ঢাকায় সেলিম মৃধা”সাক্ষাৎ করতে না পেলে আত্মহত্যার হুমকি বিজলী বার্তা’র সহ: আইটি সম্পাদক কমল কান্তি রায় এর মাতার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে বনানীর এক রেস্তোরাঁকে লাখ টাকা জরিমানা ‘জুনে পদ্মা সেতুতে দাঁড়িয়ে পূর্ণিমার চাঁদ দেখবে বাংলার মানুষ’ লালমোহনে ব্রিজ ভেঙে কয়লাবোঝাই ট্রাক খালে, ভোগান্তিতে জনগণ শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আগামীকাল চেতনানাশক খাইয়ে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে ধর্ষণ থাকছেনা ময়লার ভাগাড়, নির্মিত হবে শপিংমল ; মেয়র, সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্যে ভারতে বসুন্ধরা কিংস

গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্যে ভারতে বসুন্ধরা কিংস

স্পোর্টস ডেস্ক ::
গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হবার লক্ষ্য নিয়ে এশিয়ান ফুটবল কনফেডেরেশন (এএফসি) কাপ খেলতে ভারতে গেল বসুন্ধরা কিংস। গেল দুই’বারের আক্ষেপ এবার বিদেশিদের পায়ে ভর করে পেরোতে চায় বেঙ্গল জায়ান্টরা।

শনিবার (১৪ মে) এএফসি কাপ খেলতে কলকাতার উদ্দেশে হযরত শাহ্‌জালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে যাত্রা করে বসুন্ধরা কিংস।

গেল বারের চেয়ে শক্তিশালী দল নিয়ে ভারতে যাওয়ায় জমজমাট লড়াইয়ের প্রত্যাশা টিম ম্যানেজমেন্টের। বাংলাদেশি হিসেবে প্রথম বারের মতো এএফসি কাপ খেলতে যাওয়ায় দারূণ উচ্ছ্বসিত এলিটা কিংসলে।

গণমাধ্যমকে নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করতে গিয়ে কিংসলে বলেন, ‘বাংলাদেশের হয়ে প্রথমবারের মতো এএফসি কাপ খেলতে যাচ্ছি। আমি দারুণ উচ্ছ্বসিত। এজন্য নিজেকে মানসিকভাবে প্রস্তুত করেছি। গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্য নিয়ে ভারতে যাচ্ছি। এর বাইরে কিছু ভাবছি না।’

এদিকে ফরোয়ার্ড লাইনআপে ৫ বিদেশি ফুটবলার নিয়ে এএফফসি কাপ খেলতে যাচ্ছে বসুন্ধরা কিংস। ভালো বিকল্প ফুটবলার থাকায় আগের দুই বারের চেয়ে এবারের দল শক্তিশালী বলে মনে করেন কিংস কোচ অস্কার ব্রুজন। তবে ডিফেন্স লাইন আপের দুর্বলতা কিছুটা ভোগাতে পারে বেঙ্গল জায়ান্টদের। প্রতিপক্ষ নিয়ে নিয়ে না ভেবে ম্যাচ বাই ম্যাচ খেলে সব ম্যাচে জয় পেতে চান কিংস অধিনায়ক রবসন রবিনিয়ো।

নিয়মিত চার বিদেশির দুই জন অধিনায়ক রবসন রবিনিয়ো ও ইরানের খালেদ শাফি গেল বারও কিংসের হয়ে খেলেছেন এএফসি কাপে। লিগ চ্যাম্পিয়নদের নতুন সংযুক্তি ব্রাজিলিয়ান মিগুয়েল ফেরেইরা আর গাম্বিয়ান ফরোয়ার্ড নুহা মারং। তাদের পায়ে প্রথম বারের মতো গ্রুপ পর্ব পেরোনোর স্বপ্ন দেখছে কিংস।

তবে অস্কার ব্রুজনের বাজীর ঘোড়া হতে পারে এএফসি কাপে কিংসের নতুন দুই রেজিষ্ট্রেশন। শেখ জামাল থেকে চিনেদ্যু ম্যাথিউ আর মুক্তিযোদ্ধার সুদি আব্দুল্লাহ। সঙ্গে এএফসি কাপে লোকাল প্লেয়ার হিসেবে খেলার অনুমোদন পাওয়া এলিটা কিংসলেকে দেখা যেতে পারে নাম্বার নাইনের ভূমিকায়।

তবে বসুন্ধরার দুর্বলতা দেখা যেতে পারে ডিফেন্স লাইন আপে। ইনজুরিতে অভিজ্ঞ তপু বর্মণ নেই। ইরানের খালেদ শাফি, বিশ্বনাথ ঘোষ আর তারেক কাজীকে নিতে হবে ডিফেন্স সামলানোর মূল দায়িত্ব। এএফসি কাপে খেলা ৬ বিদেশির মধ্যে ৫ জনই ফরোয়ার্ড। দল গড়ার সময় ডিফেন্স শক্তিশালী করতে আরও একজন বিদেশীকে নেয়া যেত কিনা জানতে চাইলে কিংস টেকনেশিয়ান অস্কার ব্রুজন জানান। এই দল নিয়ে করা সম্ভব প্রতিপক্ষ মোকাবিলা।

প্রতিপক্ষ তিন দলের মধ্যে ভারতের মোহনবাগান ও মালদ্বীপের মাজিয়া স্পোর্টসের সঙ্গে গেল বার খেলেছে কিংস। এবার প্রথম বারের মতো লড়বে ভারতের আইলিগের দল গোকুলাম কেরালার সঙ্গে। তিন দলই এএফসি কাপকে সামনে রেখে গড়েছে শক্তিশালী দল।

১৮ মে প্রথম ম্যাচে মাজিয়া স্পোর্টসকে হারাতে পারলে আত্মবিশাস বারবে বসুন্ধরার ফুটবলাদের। আর গ্রুপে কিংসের সবচেয়ে বড় প্রতিপক্ষ স্বাগতিক ক্লাব এটিকে মোহন বাগান। ২১ মে মোহনবাগান এবং ২৪ মে গকুলাম কেরালার বিপক্ষে মাঠে নামবে কিংসরা। কলকাতার সল্টলেকেই হবে কিংসের তিন ম্যাচ।

সবাইকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা