মঙ্গলবার, ১৪ই জুলাই, ২০২০ ইং, রাত ১:৫৭
শিরোনাম :
বরিশালের মুলাদীর ফেক আই ডি কাজিরচর নিউজ বুলেটিন এর বিরুদ্ধে থানায় জি.ডি পিরোজপুরে দুই বোনসহ তিনজনের করোনা শনাক্ত করোনার ক্রান্তিকালে মানবিকতার অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে পিরোজপুর জেলা পুলিশে কর্মরত ৪৬ তম ব্যাচের পুলিশ কনস্টেবলগণ করোনা আক্রান্তের হার সবচেয়ে বরিশালে কম, সর্বোচ্চ ঢাকায় ঝালকাঠির রাজাপুরে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার ত্রাণ তহবিল থেকে অসহায় দুঃস্থদের মাঝে চিকিৎসা সহায়তার চেক বিতরণ জানি কিন্তু মানিনা, নীতিকে পাশ কাটিয়ে মৃত্যুর ঝুঁকি নিয়ে ব্যবসা নলছিটিতে ইয়াবাসহ চার মাদক কারবারি গ্রেপ্তার দেশে করোনায় নতুন শনাক্ত ৭০৯ করোনা তহবিলে টাইগারদের ৩০ লাখ; আরও সাহায্য চাইলেন মুশফিক করোনায় থেমে নেই পদ্মা সেতুর কাজ, বসছে ২৯তম স্প্যান

মুলাদীতে রাতের আধারে রিং ছাড়াই সরকারী বিল্ডিংএর কলাম ঢালাই

তালুকদার খোকন:

মুলাদীতে রাতের আধারে রিং ছাড়াই সরকারী বিল্ডিংএর কলাম ঢালাই, স্থানীয়দের বাধার মুখে কাজ বন্ধ। মুলাদী উপজেলার সদর ইউনিয়নের চরলক্ষীপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয় (বোড স্কুল) এর ১তলা ভবন নির্মান কাজে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেছে। জানাগেছে, গৌরনদীর মীর্জা কনস্ট্রাকশন ৬৭লক্ষটাকা বরাদ্দে মুলাদী চরলক্ষীপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ১তলা বিশিষ্ঠ ভবনের কাজ টেন্ডার পেয়ে শুরু থেকেই অনিয়ম করে আসছে। সঠিক ভাবে সিমেন্ট, বালু, না দিয়ে নিন্ম মানের খোয়া ও ইট ব্যবহার করে সং¯িøষ্ঠ কর্তৃপক্ষকে ফাকি দিয়ে বিল্ডিং নির্মানের কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। এরই প্রেক্ষিতে গত মঙ্গলবার সন্ধায় ইফতারের সময় রিং ছাড়া এবং পরিমানের চেয়ে অনেক কম সিমেন্ট দিয়ে ভিম ঢালাইয়ের কাজ শুরু করলে স্থানীয়দের চোখে বিষয়টি পরলে তারা সকলে মিলে সেখানে এসে বাধা প্রদান করেন। অনিয়ম করে ঢালাই দেয়ার সময় স্থানীয় লোকজনকে মোবাইল ফোনে হুমকি দেয়ার অভিযোগও পাওয়া গেছে মীর্জা কনস্ট্রাকশনের ম্যানেজার রিপনের বিরুদ্ধে, তবে তিনি তা অস্বীকার করেন। সংবাদ পেয়ে মুলাদী উপজেলা শিক্ষা প্রকৌশলীর উপসহকারী গোলাম রাব্বী ঘটনাস্থলে গিয়ে কাজ বন্ধ করে দেন তিনি অনিয়মের বিষয়টি উর্দ্ধতনকর্তৃপক্ষকে অবহিত করেন। এ সময়ে উপস্থিত ছিলেন মুলাদী উপজেলা সাবেক আওয়ামীলীগ সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক দুলাল মাহমুদ, বিদ্যালের জমি দাতা আলহাজ্ব নুরুল ইসলাম হাওলাদার সহ এলাকার স্থানীয় সুধিসমাজ। স্থানীয়দের ধারনা প্রধান শিক্ষক মহিউদ্দিন সঠিকভাবে তদারোকী না করা কিংবা আতাত করার কারনে এভাবে অনিয়ম করেই দীর্ঘদিন যাবত কাজ চালিয়ে যাচ্ছে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান। অনিয়মের বিষয়ে মীর্জা কনস্ট্রাকশনের প্রোপাইটর আসাদুজ্জামানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, অনিয়মের কথা শুনে সাথে সাথে আমি কাজ বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছি।