শুক্রবার, ৭ই মে, ২০২১ ইং, বিকাল ৩:১৬

করোনা ভাইরাসেও বাকেরগঞ্জের ভরপাশায় টোকাই মেহেদীর জমজমাট মাদক কারবার

বাকেরগঞ্জ প্রতিনিধি::

করোনা ভাইরাসেও জমজমাট বাকেরগঞ্জের টোকাই মেহেদীর মাদক কারবার। মাদক কারবারি খান মোঃ মেহেদী ওরফে টোকাই মেহেদী মানছে না কোন বাঁধা। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী যখন করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় ব্যস্ত, ঠিক তখন মাদক কারবারি মেহেদীরা জেগে উঠেছে। তখন সোর্সের নিয়ন্ত্রণে চলছে প্রকাশ্যে ইয়াবা ও গাঁজা বিক্রি। মাঝে মাঝে কিছু কিছু মাদক কারবারিকে গ্রেপ্তার করলেও ধরা ছোঁয়ার বহিরে থেকে যায় মেহেদীর মত মাদকের ডিলাররা। আবার কোন কোন মাদক ব্যবসায়ী জেল হাজতে থাকায় এলাকায় দাপটের সঙ্গে মাদক বিক্রি করে তাদের স্বজনরা।
জানা যায়, বাকেরগঞ্জের ভরপাশা ইউনিয়নে খান মোঃ মেহেদী ওরফে টোকাই মেহেদী আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে ফাঁকি দিয়ে জমজমাটভাবে চালাচ্ছে মাদকের ব্যবসা। ভরপাশা ইউনিয়নের গোলদার বাড়ী, দুধলমৌ, লক্ষীপাশা, বটতলা, কৃষ্ণকাঠী, লেবুখালী ও পৌরসভার সিনেমা হল এলাকায় দেদারছে চালাচ্ছে তার মাদক ব্যবসা। বিভিন্ন সূত্র থেকে আরও জানা যায়, ভরপাশা ইউনিয়নের ৯টি ওয়ার্ডে ১০-১২ টি জায়গায় মাদকের স্পট রয়েছে। এদের মধ্যে মাদকের ভ্রাম্যমাণ স্পটের সংখ্যা রয়েছে বেশি। আর সবচেয়ে বেশী রয়েছে গোলদার বাড়ী ও কৃষ্ণকাঠীতে। পরিচয় গোপন রাখার শর্তে এলাকার একাধিক ব্যক্তি জানান, সম্প্রতি ভরপাশা ইউনিয়নের একজন চেয়ারম্যান প্রার্থীর নাম ভাংগিয়ে খান মোঃ মেহেদী ওরফে টোকাই মেহেদী তার নিয়ন্ত্রণে চালাচ্ছে মাদকের জমজমাট ব্যবসা।
ওই চেয়ারম্যান প্রার্থীর পক্ষে নির্বাচনের প্রচারণার সুযোগে সে সর্বত্র নির্বিঘ্নে তার গাঁজা ও ইয়াবার ব্যবসা করছে। এলাকাবাসী আরও জানায়, করোনা সংকট মোকাবেলায় দেশে লকডাউন চলায় সবাই বাসায় অবস্থান করছে। এই সুযোগে টোকাই মেহেদী এলাকায় আড্ডা দিয়ে কিশোর গ্যাংদের সাথে নিয়মিত মাদক সেবন করে তাদের সঙ্গ দিয়ে তার মাদক ব্যবসার সম্প্রসারন করছে। লক ডাউনে এলাকার কিছু কিছু চায়ের দোকান বন্ধ থাকলেও প্রতিদিন সন্ধ্যার পর টোকাই মেহেদী কৃষ্ণকাঠী, গোলদার বাড়ী ও লক্ষীপাশা বাজারে মাদকের হাট বসিয়ে না কোনোভাবেই তার মাদক বিক্রি করে থাকে। নির্জনতার সুযোগে চুটিয়ে আড্ডার ছলে মাদকসেবন করছে। এ বিষয়ে বাকেরগঞ্জ থানার ওসি মোঃ আলাউদ্দিন মিলন বলেন, মাদকের সঙ্গে আমাদের কোনো আপস নেই। আগের তুলনায় মাদক ব্যবসা অনেক কমেছে। আর করোনার মধ্যেও মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান চলমান রয়েছে। মাদক ব্যবসায়ী কাউকেই ছাড় দেয়া হবেনা।