রবিবার, ২৯শে মে, ২০২২ ইং, ভোর ৫:২৩
শিরোনাম :
বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে বনানীর এক রেস্তোরাঁকে লাখ টাকা জরিমানা ‘জুনে পদ্মা সেতুতে দাঁড়িয়ে পূর্ণিমার চাঁদ দেখবে বাংলার মানুষ’ লালমোহনে ব্রিজ ভেঙে কয়লাবোঝাই ট্রাক খালে, ভোগান্তিতে জনগণ শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আগামীকাল চেতনানাশক খাইয়ে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে ধর্ষণ থাকছেনা ময়লার ভাগাড়, নির্মিত হবে শপিংমল ; মেয়র, সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্যে ভারতে বসুন্ধরা কিংস কলাপাড়ায় লালুয়া ইউনিয়নে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ১০ লাখো মানুষের ভালোবাসায় শিরিনের শেষ বিদায় আমিরাতের প্রেসিডেন্টের মৃত্যুতে শনিবার বাংলাদেশে রাষ্ট্রীয় শোক

ওমিক্রনরোধে ফাইজারের চেয়ে শক্তিশালী স্পুটনিক-ভি

অনলাইন ডেস্ক

রাশিয়ার স্পুটনিক-ভি টিকা নেওয়া লোকজনের ওমিক্রন নিঃশ্বেষের অ্যান্টিবডি ফাইজারের মতো দ্রুত গতিতে কমে যায় না। ডেল্টা ও ওমিক্রন সংক্রমণ মোকাবিলায় এই টিকার কার্যকারিতা অন্যদের চেয়ে বেশি বলে দাবি করেছেন বিজ্ঞানীরা।

একটি প্রাথমিক গবেষণার বরাতে বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদন এমন তথ্য দিয়েছে। রাশিয়ার ডাইরেক্ট ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডের অর্থায়নে রাশিয়া-ইতালি যৌথভাবে গবেষণাটি চালিয়েছে। ডাইরেক্ট ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডই স্পুটনিক-ভি টিকার উদ্ভাবক।

ভিন্ন ভিন্ন টিকা নেওয়া ব্যক্তিদের রক্তের সিরামের তুলনা করা হয়েছে গবেষণায়। ইতালির স্পালানজানি ইনস্টিটিউট ও মস্কোর গামালেয়া ইনস্টিটিউটের বিজ্ঞানীরা গবেষণাটি পরিচালনা করেছেন।

তারা বলছেন, টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার ছয় মাস পর লোকজনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এতে দেখা গেছে, যারা ফাইজারের টিকা নিয়েছেন, তাদের চেয়ে দুডোজ স্পুটনিক-ভি টিকা নেওয়া ব্যক্তিদের অ্যান্টিবডি অনেক বেশি ওমিক্রনপ্রতিরোধী।

স্পুটনিক-ভি টিকা নেওয়া ৫১ জন ও ফাইজারের টিকা নেওয়া ১৭ ব্যক্তি গবেষণায় অংশ নিয়েছেন। গেল ১৯ জানুয়ারি প্রাথমিক গবেষণাটি প্রকাশ করা হয়েছে।

এতে বলা হয়, তৃতীয় বুস্টার ডোজ নেওয়ার প্রয়োজনীয়তা আজ আবশ্যক বলেই মনে হচ্ছে। যারা স্পুটনিক-ভি টিকা নিয়েছেন, তাদের রক্তের সিরামে সুনির্দিষ্টভাবে ওমিক্রন নিঃশ্বেষ করার অ্যান্টিবডি ৭৪ দশমিক ২ শতাংশ শনাক্ত হয়েছে। কিন্তু ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকা নেওয়া ব্যক্তিদের তা ৫৬ দশমিক ৯ শতাংশ।

মস্কোর গামালেয়া ইনস্টিটিউটের প্রাথমিক গবেষণা বলছে, স্পুটনিক-ভি টিকার দুডোজ নেওয়ার পর স্পুটনিক লাইটের একটি বুস্টার নিলে তাতে ওমিক্রনের বিরুদ্ধে জোরালো সুরক্ষাবলয় তৈরি করতে পারে।

এক বিবৃতিতে আরডিআইএফের প্রধান কিরিল দিমিত্রিভ বলেন, ভিন্ন প্ল্যাটফর্মের সঙ্গে অংশীদারত্ব গুরুত্বপূর্ণ। ডেল্টা ও ওমিক্রনের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় স্পুটনিক লাইট জোরালো কার্যকারিতা তৈরি করতে পারে।

পশ্চিম ইউরোপ ও যুক্তরাষ্ট্রে করোনার ভয়াল প্রকোপের জন্য ওমিক্রনকে দায়ী করা হচ্ছে। যদিও ধরনটি কেবল রাশিয়ায় ছড়িয়ে পড়তে শুরু করেছে।

সবাইকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা